বগুড়া জেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষা কর্মকর্তা কামরুল

51

ইমদাদুল হক ইমরান: বগুড়া জেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষা কর্মকর্তা হওয়ার গৌরব অর্জন করেছেন ধুনট উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (টিও) কামরুল হাসান। তিনি জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ-২০১৯ প্রতিযোগিতায় জেলার ১২ উপজেলার মধ্যে শ্রেষ্ঠ উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা হিসেবে মনোনীত হয়েছেন।

শিক্ষা অফিস সূত্রে জানা যায়, কামরুল হাসান ২০১৬ সালের ১৭জুলাই এ উপজেলায় যোগদান করেই শিক্ষাকে সর্বজনীন, গুণগত ও মানসম্পন্ন করার উদ্দেশ্যে প্রাথমিক শিক্ষার ওপর কাজ শুরু করেন। কারণ তিনি বিশ্বাস করেন- প্রাথমিক বিদ্যালয় থেকেই শিশুর মেধা বিকাশের বুনিয়াদ গঠন হয়।

তাই বিদ্যালয়ের শতভাগ শিক্ষার্থী উপস্থিতি নিশ্চিতকরণ ও ঝরেপড়া রোধকল্পে বিদ্যালয় পরিদর্শন, অভিভাবক সমাবেশ, শিক্ষক/শিক্ষিকাদের ডিজিটাল হাজিরা, পরিচয়পত্র প্রদান, শিক্ষার্থীদের মিড ডে মিল উপকরণ (টিফিন বক্স) বিতরণ, দরিদ্র শিক্ষার্থীদের মাঝে শিক্ষা উপকরণ, পোশাক, জার্সি ও ক্রীড়া সামগ্রী বিতরণ, পরিষ্কার ও নিরাপদ পানি ব্যবস্থার জন্য পানির ফিল্টার বিতরণ, শ্রেণিকক্ষ এবং বিদ্যালয় প্রাঙ্গণ পরিষ্কার-পরিছন্ন রাখাসহ বিদ্যালয়কে আকর্ষণীয় করার লক্ষ্যে ফুলবাগান করা, শ্রেণিকক্ষে ঝুড়ি স্থাপন, কাব দল গঠন, বিভিন্ন বিদ্যালয়ে বঙ্গবন্ধু বুক কর্ণার, বেঞ্চ সরবরাহসহ নানাবিধ প্রশংসনীয় ও শিক্ষাবান্ধব উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন।

এর ফলে এ উপজেলার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রায় ৩৩ হাজার শিক্ষার্থী বিদ্যালয়মূখী হয়েছে। এতে করে প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষার্থীর উপস্থিতির হার বৃদ্ধি পেয়েছে এবং ঝরেপড়াও রোধ হয়েছে বলে অভিভাবক, শিক্ষক এবং এলাকার শিক্ষা সচেতন ব্যক্তিরা আশাবাদ ব্যক্ত করেন। এরই স্বীকৃতি স্বরূপ জাতীয় প্রাথমিক শিক্ষা সপ্তাহ-২০১৯ প্রতিযোগিতায় তাকে জেলার শ্রেষ্ঠ শিক্ষা কর্মকর্তা হিসেবে মনোনয়ন দেয়া হয়।

এ বিষয়ে ধুনট উপজেলা শিক্ষা কর্মকর্তা (টিও) কামরুল হাসান বলেন, ভালো কাজের স্বীকৃতি খুবই আনন্দের। আর স্বীকৃতি পেলে আত্মবিশ্বাস ও দায়বদ্ধতা দু’টিই বেড়ে যায়। তাই এমন স্বীকৃতি ভবিষ্যত কর্মজীবনে অনুপ্রেরণা যোগাবে।