লক্ষীপুরের রায়পুরে ডাকাতিকালে গণপিটুনিতে নিহত ১, আহত ৫

85

মো: আবদুল কাদের: লক্ষ্মীপুরের রায়পুরে ডাকাতিকালে জনতার গণপিটুনিতে সোহেল নামে এক ডাকাত নিহত হয়েছে। এ ঘটনায় গণপিটুনিতে আরো ৫ ডাকাত আহত হয়েছে। আহত ৫ ডাকাতকে অস্ত্র গুলিসহ আটক করেছে রায়পুর থানা পুলিশ।

আহত ডাকাত সদস্যরা হলেন কাউছার, মমিন, মিরাজ, সুমন ও ইব্রাহীম। তাদের বাড়ি চাঁদপুরের হাইমচ গ্রামে।
শুক্রবার (২২ নভেম্বর) ভোর রাতে উপজেলার বামনী ইউনিয়নের সাগরদী গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। নিহত ডাকাত সোহেলের মরদেহ রায়পুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে রাখা হয়েছে। অপর আহতদের পুলিশি হেফাজতে চিকিৎসা চলছে।

পুলিশ ও স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, শুক্রবার ভোর রাতে জব্বার আলী বেপারি বাড়ির প্রবাসী মনিরের বসতঘরে ডাকাতিকালে বাড়ির লোকজন চিৎকার করলে আশে পাশের মানুষ ডাকাতদের ঘেরাও করে ৬ ডাকাতকে আটক করে গণপিটুনি দেয়। পরে তাদের হাসপাতালে নেওয়া হলে সোহেলকে মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।রায়পুর থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা মো. তোতা মিয়া জানান, ডাকাতিকালে ৬ ডাকাতকে গণপিটুনি দেয় জনতা। খবর পেয়ে পুলিশ এসে ডাকাতদের কাছ থেকে ২টি এলজি ও ৬ রাউন্ড কার্তুজ উদ্ধার করে। পরে তাদেরকে হাসপাতালে নেয়ার পর একজন মারা যায়। অপর আহতদের পুলিশি হেফাজতে চিকিৎসা চলছে। তাদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।