চিতলমারীতে ফাইনাল খেলায় মারপিট, শিক্ষকসহ আহত ১৩

51

চিতলমারী (বাগেরগহাট) প্রতিনিধিঃ বাগেরহাটের চিতলমারীতে বুধবার বিকালে চরবানিয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ে অনুষ্ঠিত বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট-২০১৯ ফাইনাল খেলায় গোল দিতে না পেরে মারপিট করেছে চরবানিয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় একাদশ। এসময় সাবোখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয় একাদশের নবম শ্রেণির ছাত্র শয়ন পান্ডে (১৫), দশম শ্রেণীর ছাত্র মোঃ রাকিব তালুকদার (১৬), ষষ্ঠ শ্রেণীর ছাত্র আকাশ হালদার (১২), নবম শ্রেণীর ছাত্র জয় হালদার (১৫), দশম শ্রেণীর ছাত্র মোঃ শোহাইব খন্দকার (১৬), দশম শ্রেণির ছাত্র বিভাস মন্ডল (১৬), ক্রীড়া শিক্ষক মৌসুমী মন্ডল, সহকারী শিক্ষক বসন্ত কুমার মন্ডল এবং চতুর্থ শ্রেণির কর্মকর্তা নিহার রঞ্জন বালাসহ ৪/৫ জন ছাত্র আহত ও লাঞ্ছনার শিকার হয়। এমনটাই জানিয়েছেন সাবোখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক বিপদ ভঞ্জন মন্ডল । তিনি আরো জানান, এবছর বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও বঙ্গমাতা বেগম ফজিলাতুন্নেছা মুজিব জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্ণামেন্ট-২০১৯ খেলায় সাবোখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয় এবং চরবানিয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় ফাইনালে ওঠে। খেলাটি অনুষ্ঠিত হয় চরবানিয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে। সেখানে উভয় দলের হাড্ডাহাড্ডি লড়াই হয়। খেলাটির শেষ পর্যায়ে এসে গোল দিতে না পেরে চরবানিয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয় একাদশ আমাদের খেলোয়াড়দের উপর আক্রমন করে। এসময় আমার শিক্ষকবৃন্দ ঠেকাতে গেলে তাদের উপর ছাত্ররা চড়াও হয়। আমি দৌড়ে চরবানয়ারী মডেল উচ্চ বিদ্যালয়ের শিক্ষকদের কাছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনার জন্য অনুরোধ জানাই। পরে আমি আহত শিক্ষক ও ছাত্রদের চিতলমারী স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করি।

চিতলমারি উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকাল্পনা অফিসার ডাঃ মোঃ আলমগীর হোসেন জানান, গতকাল আহত ৬ জন ছাত্র খেলোয়াড় আহত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছে। আহতরা এখন সুস্থ আছে। আরো ৬/৭ জন প্রাথমিক চিকিৎসা শেষে ফিরে গেছে।

সাবোখালী মাধ্যমিক বিদ্যালয়ের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি ও জেলা পরিষদের সদস্য হাজী মোঃ মোহন আলী বিশ্বাস জানান, আমি বিষয়টা শুনে আহতদের খোজ খবর নেই এবং উপজেলার বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ ও কর্তৃপক্ষের সাথে আলোচনা করেছি। তারা এর সুষ্ঠু মিমাংসার আশ্বাস দিয়েছেন।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার মোঃ মারুফুল আলম জানান, উভয় বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক আমাকে বিষয়টি জানিয়েছে এবং আমি এ ব্যাপারে মিমাসার জন্য সবাইকে অনুরোধ জানিয়েছি। আগামী সোমবার এ লক্ষ্যে উভয় পক্ষের বসে সমাধানের কথা রয়েছে।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here