বগুড়ায় গৃহবধুর গলাকাটা লাশ উদ্ধার, স্বামী পলাতক

148

জিএম মিজান: বগুড়া সদর উপজেলায় নূরজাহান (২৫) নামে এক গৃহবধূর গলাকাটা লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। গতকাল মঙ্গলবার রাত সাড়ে ১১টায় ঘরের দরজার তালা ভেঙে নূরজাহানের লাশ উদ্ধার করা হয়। ঘটনার পর থেকে স্বামী শাহিন মিয়া পলাতক রয়েছেন। প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে, স্বামী শাহিন মিয়া তাকে হত্যা করেছেন। শাহিন বগুড়া শহীদ জিয়াউর রহমান মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের কর্মরত ওয়ার্ড বয়। তাকে খুঁজতে পুলিশ রাতেই অভিযানে নেমেছে। জানা গেছে, বগুড়া সদরের কদিমপাড়া গ্রামের দৌলতজ্জামানের ছেলে শাহিন মিয়ার সাথে শিবগঞ্জ উপজেলার দাইমুল্যা গ্রামের মৃত সাবাশ সাখিদারের মেয়ে নূরজাহানের বিয়ে হয় মাত্র ১০ দিন আগে। বিয়ের দিনই শাকপালা দীঘির পাড় এলাকায় একটি বাসা ভাড়া নিয়ে বসবাস শুরু করেন তারা। ধারণা করা হচ্ছে, সন্ধ্যার পর কোনো এক সময় নূরজাহানকে গলা কেটে হত্যা করে ঘরে তালা দিয়ে পালিয়ে যান শাহিন মিয়া। রাত ১১টার সময় প্রতিবেশীদের মাধ্যমে পুলিশ খবর পেয়ে লাশ উদ্ধার করে। বগুড়া সদর থানার অপিসার ইনচার্জ (ওসি) এসএম বদিউজ্জামান এ প্রতিবেদক-কে বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে গলা কেটে হত্যা করা হয়েছে। তার স্বামীকে গ্রেফতার করতে অভিযান অব্যাহত আছে।