বগুড়ার অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করলেন ইউএনও

78

জিএম মিজান: বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় খাস জমিতে অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করলেন ইউএনও। বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মো. লিয়াকত আলী সেখের নির্দেশে ভবানীপুর ইউনিয়নের বিশ্বা এলাকায় বিশ্বা হাইস্কুলের পূর্ব ধারে বিশ্বা মৌজার ১নং খাস খতিয়ান ভুক্ত ৯১৯ নং দাগে ১.৯ শতাংশ জমির উপর নির্মিত ৭টি দোকান ঘর ভেঙ্গে গুড়িয়ে দেয়া হয়েছে। এসময় উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সহকারি কমিশনার (ভূমি) মো. আরাফাত হোসেন, শেরপুর থানার এস আই আব্দুল গফুর, ইউপি ভূমি কর্মকর্তা এ.এস.এম মোশারফ হোসেনসহ পুলিশ বাহিনীর কর্মকর্তারা। স্কুলের ম্যানেজিং কমিটির সভাপতি অর্জুন কুমার জানান, বিশ্বা হইস্কুলে ম্যানেজিং কমিটি স্কুলের উন্নয়নের জন্য টেন্ডারের ভিত্তিতে স্কুলের কিছু গাছ বিক্রয় করে স্কুুলের পূর্ব ধারে সরকারি খাস জমিতে ৭টি দোকান ঘর নির্মান করে। উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা মোঃ লিয়াকত আলী সেখ এ প্রতিবেদক-কে বলেন, সরকারী জায়গায় অবৈধভাবে ৭টি দোকান বানিয়ে ভাড়া দেওয়ার পরিকল্পনা করছিল এ নিয়ে এলকায় উত্তেজনা বিরাজ করায় অবৈধ স্থাপনা ভেঙ্গে দেওয়া হয়েছে। এবং বারংবার অবৈধ স্থাপনা সরিয়ে নেয়ার কথা বলা হলেও এরা তাদের স্থাপনা সরিয়ে না নেয়ায় এদের উচ্ছেদ করা হয়েছে। খাস জমিতে অবৈধ স্থপানা উচ্ছেদ অভিযান চলমান থাকবে বলে তিনি জানিয়েছেন।