৪৫ বছরে পা দিলেন ঐশ্বরিয়া

52

দু’দশক ধরে বলিউড মাতাচ্ছেন তিনি। নিজের সৌন্দর্য আর অভিনয় দিয়ে মন জিতেছেন দর্শকের। তিনি ঐশ্বরিয়া রাই বচ্চন। আজ তাঁর ৪৫তম জন্মদিন। সৌন্দর্য, বিতর্ক, ফিল্মি ক্যারিয়ার- একহাতে এত দিক সামলালেন কীভাবে?

মাতৃত্বলাভের পর থেকে ঐশ্বরিয়া খুব বেছে বেছে কাজ করেন। মা, স্ত্রী, মেয়ে ও বউমা হিসেবে তাঁর দায়িত্বর জন্যই হয়তো কয়েকবছর ধরে তাঁকে বড় পরদায় খুবই কম দেখা গেছে। অন্য সেলিব্রিটি মায়ের মতো তিনি চাননি তাঁর মেয়ে বড় হোক ন্যানিদের হাতে। যদিও এটা খুবই আপেক্ষিক ব্যাপার, তবুও ঐশ্বরিয়া গুরুত্ব দিয়েছেন তাঁর মাতৃত্বের ভূমিকাকে।

এক সাক্ষাৎকারে ঐশ্বরিয়া বলেছেন, ১৮ বছর বয়স থেকেই আমি অনেক দায়িত্ব পালন করে আসছি। এটা আমার অভ্যেস হয়ে গেছে। তবে আরাধ্যার জন্মের পর আমার সমস্ত প্রায়োরিটি বদলে গেছে। ও সবার আগে, বাকি সব তারপরে।

আরাধ্যার জন্মের পর ওজন বেড়ে গেছিল অনেকটা। তার জন্য ট্রোলড হয়েছেন প্রচুর। কিন্তু, সংযম হারাননি ঐশ্বরিয়া। উলটে তিনি উত্তরে বলেন আমি এইসব সমালোচনা খুব ভালো সামলাতে পারি। কারণ আমি অনেক বছর ধরে সহ্য করে এসেছি এইসব।

শান্তভাবে সব কিছু সামলানোর মন্ত্রও বলেছেন ঐশ্বরিয়া। এক সাক্ষাৎকারে তিনি বলেন, তিনি কোনও নেগেটিভিটিকে আমল দেন না। এত ইতিবাচক থাকেন তিনি যে অন্য কোনও চিন্তার প্রভাবই পড়ে না তাঁর ওপর।

ঐশ্বরিয়ার ভাষায়, নিজের ভিতরের মানুষটাকে একবার চিনে নিলে, বাইরের কোনও কথাই আর প্রভাব ফেলবে না তোমার উপর। তোমার ব্যাপারে অন্য কারোর ধারণা যেন বিচার না করে তোমায়। একমাত্র তোমারই অধিকার আছে তোমায় জাজ করার।

বলিউডে এখন অনেক অন্যধারার ছবি হচ্ছে। বিবাহিত অভিনেত্রী বা যাঁরা মা হওয়ার পরেও কাজ করে চলেছেন তাঁদের গুরুত্বপূর্ণ চরিত্রের জন্য ভাবছেন চিত্রনাট্যকাররা। আর তাই ঐশ্বরিয়াকে আমরা আরও বেশি করে বড় পর্দায় দেখতে পাব, এই আশাই করি। জন্মদিনে তাঁকে অনেক শুভেচ্ছা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here