ভারতকে হারিয়ে ফাইনালে নিউজিল্যান্ড

70

আবির খান আশিক: ভারতকে হারিয়ে ফাইনালে নিউজিল্যান্ড। প্রথম সেমিফাইনালে ভারতকে 18 রানে হারায় তারা। এই নিয়ে টানা দ্বিতীয়বার বিশ্বকাপে ফাইনালে নিউজিল্যান্ড।

প্রথম সেমিফাইনালে 239 রানে নিউজিল্যান্ডকে বেঁধেছিল ভারত। কিন্তু এই সহজ টার্গেটটা যেন তাদের কাছে কঠিন করে তুলেছিল হেনরি আর বোল্ট। দলীয় 5 রানে হারিয়েছিল টপ অর্ডারের 3 ব্যাটসম্যানকে। দলীয় 4 রানে রহিত শর্মার (1 রান) উইকেট হারায় ভারত। এরপর এক রান করতে না করতে আবার উইকেট হারায় ভারত। অধিনায়ক বিরাট কোহলিকে এলবিডব্লিউ ফাঁদে ফেলে আউট করে বোল্ট। বিরাট কোহলি আউট হবার পর দলীয় 5 রানে আবার উইকেট হারায় লোকেশ রাহুলের। এর দলীয় 24 রানে আউট হয়ে যায় ডেনিশ কার্তিক। এরপর রিসাপ পান্ট আর হার্তিক পান্ডে দলের হাল ধরে। 71 ও 92 রানে পান্ট ও হার্তিক আউট হয়ে গেলে আবারো দূর্যোগে পরে ভারত। সেখান থেকে জয়ের আশা জাগিয়ে জয়ের কাছাকাছি চলে যায় ভারত। অলরাউন্ডার রবীন্দ্র জাদেজা ও ধোনির পার্টনাশিপে জয়ের স্বাদের কাছে চলে আসে ভারত। কিন্তু জাদেজা আউট হলে গেলে জয়ের আশা কিছুটা চলে যায়। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ধোনি আশা জাগিয়ে পারেনি। শেষ পর্যন্ত 221 রানে অলআউট হয়ে যায় ভারত।

আগামীকালে এই ম্যাচটি পরিত্যক্ত হওয়া ম্যাচটি আজ আবার আগের জায়গায় থেকে শুরু করে দু-দল।  প্রথমে টসে জিতে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নেয় নিউজিল্যান্ড অধিনায়ক কেন উয়িলামসন। শুরুতে দলীয় 1 রানের মাথায় 1 রান করে আউট হন মার্টিন গাপটিল। এরপর কেন উয়িলামসন ও হেনরি নিকলস দলের হাল ধরেন। এরপর দলীয় 69 রানে নিকলস আউট হয়ে গেলে দলের হাল ধরেন রস টেইলর ও কেন উয়িলামসন 134 রানে ব্যাক্তিগত 67 রানে আউট হয়ে গেলে এরপর নিয়মিত উইকেট হারাতে থাকে। দলের পক্ষে সর্বোচ্চ রান করেন রান করেন। শেষ পর্যন্ত নিউজিল্যান্ডে ইনিংস থামে 50 ওভার খেলে 8 উইকেট হারিয়ে 239 রান।