বুড়িচংয়ে ভিটা থেকে উচ্ছেদ করতে হতদরিদ্র প্রতিবন্ধী পরিবারের উপর হামলা

808
বুড়িচং(কুমিল্লা) প্রতিনিধি: কুমিল্লা বুড়িচংয়ের সদকপুর গ্রামের এক হতদরিদ্র  প্রতিবন্ধী পরিবারের উপর অমানবিক নির্যাতন ও জুলুমের অভিযোগ পাওয়া গেছে। উপজেলার সাদকপুর গ্রামের ধনাগজী বাড়ির গৃহহীন হতদরিদ্র বাকপ্রতিবন্ধী শাহালম ও তার পরিবারের উপর দীর্ঘদিন ধরেই নানা ভাবে নির্যাতন ও অত্যাচার করে আসছে প্রতিবেশী ও সৎ ভাই খোরশেদ আলম ও তার ছেলে মোশাররফ হোসেন সহ কয়েকজন।
স্থানীয়রা জানায়, শাহআলম নেহাতই গরিব ও অসহায় হওয়ায় এলাকার লোকজন ও চেয়ারম্যান ও ইউপি সদস্যদের সহায়তায় গ্রামবাসী তাকে থাকার ঘরটি নির্মান করে দেয়। এছাড়া প্রতিবন্ধী শাহালমকে এলাকার সকলেই নানা ভাবে সহায়তা করে।  শাহলমকে অসহায় পেয়ে প্রতিনিয়ত তার সৎ ভাই খোরশেদ ও তার পরিবারের লোকজন বাড়িটি থেকে উচ্ছেদ করতে নানা ভাবে উঠে পরে লেগেছে। স্থানীয় ইউপি সদস্য নেয়ামউল্লাহ, প্রতিবেশী বাদশা  মিয়া, ডাঃ মনির হোসেন, ডাঃ হুমায়ুন কবির ও হারুনুর রশিদ সহ এলাকার আরো অনেকে বলেন, শাহআলম নিরিহ হওয়ায় তার উপর নির্যাতন করছে তারই সৎ ভাই খোরশেদ। এর আগেও বহুবার শাহলমকে মারধরের কারনে বিচার শালিস হয়েছে। তবে তার সৎ ভাই খোরশেদ সমাজের মানুষের কথা অমান্য করে বারবারই অসহায় পরিবারটির উপর নির্যাতন চালাচ্ছে। মুলত তার ভিটার সম্পত্তি দখল করতেই এটা করছে। গত ৩ তারিখেও এলাকার অনেকের সামনেই শাহআলমের অবর্তমানে তার বাড়িতে হামলা চালিয়ে প্রতিবন্ধী শাহআলমের ঘরটিতে ভাংচুর চালায়। এসময় খোরশেদ ও তার ছেলে স্ত্রী সহ শাহআলমের স্ত্রীকে মারধর করে। খবর পেয়ে শাহআলম বাড়িতে এলে তাকেও মারধর করে আহত করে। এসময় শাহালমের ঘরের অনেক মালামাল ও নিয়ে যায় খোরশেদের লোকজন। পরে এলাকাবাসি এগিয়ে এসে খোরশেদ কে নিরস্ত্র করে। আহত অবস্থায় গ্রামের লোকজন শাহআলমের স্ত্রী কে উদ্ধার করে উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে প্রেরণ করে। এবং বুড়িচং থানায় অভিযোগ করার পরামর্শ দেয় এলাকাবাসী। এলাকাবাসীর পরামর্শে ৪ তারিখে শহআলমের স্ত্রী  বাদী হয়ে থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।  অভিযোগ দায়ের করার পর গত বৃহস্পতিবার আবারো হামলা চালায় খোরশেদ ও তার লোকজন অসহায় পরিবারটির উপর। এসময় আবারো ভাংচুর সহ লুটপাট চালানো হয়।
স্থানীয় এলাকাবাসী, ইউপি সদস্য, ভুক্তভোগী শাহআলম ও তার পরিবারের দাবী, অসহায় পরিবারটির ওপর নির্যাতন ও হামলাকারী আসামীদের দ্রুত আইনের আওতায় এনে কঠিন স্বাস্তি নিশ্চিত করা হোক। আইনের মাধ্যমে ন্যায় বিচারের মাধ্যমে আসহায় পরিবারটিকে স্বার্বিক সহায়তা দেয়ার জন্য বুড়িচং থানা পুলিশের নিকট আহ্বান জানান স্থানীয়রা।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here