রাজনীতির এক অপরাজেয় তারকা সৈয়দ আশরাফ

72

নূরুল আলম আবির:

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক, জনপ্রশাসন ও এলজিআরডি মন্ত্রী সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম রাজনীতির আকাশের এক অপরাজেয় তারকা। স্বচ্ছ, পরিচ্ছন্ন, দায়িত্বশীল ও শৃঙ্খলাবোধ সম্পন্ন রাজনীতিকের নাম সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। বাংলাদেশের রাজনীতিকদের মধ্যে যিনি সকল দূর্নীতি ও অনিয়মের ঊর্ধ্বে থেকে দেশ ও দলের জন্য নিবেদিত প্রাণ হয়ে কাজ করেছেন, তাদের মধ্যে অন্যতম হলেন এই মহাতারকা সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম।

জাতীয় চার নেতার অন্যতম মহানায়ক, বঙ্গবন্ধুর অত্যন্ত ঘনিষ্ট সহচর স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম রাষ্ট্রপতি সৈয়দ নজরুল ইসলামের হীরকতুল্য ছেলে সৈয়দ আশরাফুল ইসলাম। তিনি ১৯৫২ সালের ১ জানুয়ারী গণআন্দোলনে উত্তাল এই সবুজ বাংলায় জন্মগ্রহণ করেন। ২০১৯ সালের ৩ জানুয়ারি থাইল্যান্ডের একটি হাসপাতালে আওয়ামী লীগের নিরঙ্কুশ বিজয় উদযাপনের মুহূর্তে সবাইকে কাঁদিয়ে না ফেরার দেশে পাড়ি জমান তিনি। কৃতি এ রাজনীতিবিদ দীর্ঘদিন ধরে ফুসফুসের ক্যান্সারে ভুগছিলেন। অসত্য আর লোভের বিপরীতে যার অবস্থান ছিল সুদৃঢ়। তিনি দীর্ঘদিন ক্ষমতার কেন্দ্রে অবস্থান করেও সম্পদের পাহাড় গড়ে তুলেননি। যার ফলে বেঁচে থেকে যেমন ছিলেন বীরোচিত ও কৃতি জননেতা; তেমনি মৃত্যুর পরও কোটি প্রাণের আরাধরায় আজ শুধু আশরাফুল ইসলাম!

রাজনীতির প্রবাদ পুরুষ হয়ে অত্যন্ত নিষ্ঠার সাথে তিনি তার দায়িত্ব পালন করেছেন। আমাদের দেশে রাজনীতিবিদ বলতেই যেখানে হাজার হাজার কোটি টাকার মালিক, সেখানে সৈয়দ আশরাফ একেবারেই ধনশূন্য নিঃস্ব জন। ওয়ান-ইলেভেনের সময় রাজনীতির কঠিনতম কঠিন মুহুর্তেও তিনি জেলে যান নি বা পালিয়েও বেড়ান নি।

১৯৯৬ থেকে আজ অবধি সবক’টি জাতীয় সংসদ নির্বাচনে এমপি নির্বাচিত হন। যা তার আকাশচুম্বী জনপ্রিয়তার সরল সত্য উদাহরণ। নিঃসন্দেহে বলা যায়, সৈয়দ আশরাফ একজন জনবান্ধব রাজনীতিবিদ ছিলেন। মানুষের জন্য দেশের জন্য নিরলসভাবে কাজ করা এ বীরতুল্য নেতার স্থান কখনোই পূরণ হবার নয়। তিনি ছিলেন আওয়ামী রাজনীতির এক অপ্রতিরোধ্য দিকপাল। বঙ্গবন্ধুর আদর্শের একনিষ্ঠ সেনানী। দলের দূর্দিনে নিজ বক্ষকে ঢাল বানিয়ে বাঁচিয়েছেন দলকে, বাঁচিয়েছেন আওয়ামী লীগকে।

হে জাতীয় বীর
পরপারে আপনি ভালো থাকুন। জান্নাতের সম্মানিত মেহমান হয়ে আপনি থাকুন সুখের লগনে। মহান প্রভু আপনাকে ভালো রাখুক। অনেক ভালো। আমরা আপনার পরকালীন জান্নাত বাস কামনা করছি। আমিন।

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here