করোনাভাইরাসের সংক্রমনের ঝুঁকি এড়াতে উল্লাপাড়ায় দোকানপাট ও মার্কেট বন্ধ

86

উল্লাপাড়া প্রতিনিধিঃ সিরাজগঞ্জের উল্লাপাড়ায় করোনাভাইরাস সংক্রমনের ঝুৃঁকি এড়াতে উপজেলা প্রশাসনের উদ্যোগে সকল দোকানপাট ও মার্কেটগুলো বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে।

গতকাল বুধবার পৌরশহর ব্যাতিতো ইউনিয়ন পর্যায়ে কিছু সংক্ষক দোকানপাট খোলার সংবাদ পেয়ে বিকেলে মডেল থানার পুলিশ প্রশাসন ও স্থানীয় ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যানদের সহায়তায় অসচেতন জনগোষ্ঠীকে নিত্যপ্রয়োজনীয় জিনিস পত্রের দোকানপাট ছাড়া গণজামায়েত হয় এমন ধরনের দোকানপাট খোলা ও অনুষ্ঠান দেখলেই আইননানুগ ব্যাবস্থা নেয়া হবে মর্মে সতর্ক করা হয়েছে।

এ বিষয়ে সিরাজগঞ্জ জেলা প্রশাসক ডক্টর ফকরুল আহাম্মদ একটি গণবিজ্ঞপ্তি প্রকাশ করেন। বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে করোনা ভাইরাসের সংক্রমনের ঝঁকি এড়াতে গণজামায়েত হয় এমন ধরনের যে কোন অনুষ্ঠান ও দোকানপাট ২৫ মার্চ থেকে আগামী ৪ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে।

বৃহস্পতিবার ২৬ মার্চ দ্বিতীয় দিনে দেখা যায় দোকানপাট বন্ধের বাস্তব চিত্র।জরুরী প্রয়োজন ছাড়া কাউকে ঘুরতে দেখা যায়নি শহরের অলিগলিতে।

এর আগে উপজেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে করোনাভাইরাস আতঙ্কে ও সরকারি নিদের্শনায় মঙ্গলবার থেকেই বিভিন্ন হাটবাজারের দোকানপাট বন্ধ করতে মাইকিং ও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে প্রচারনা চালানো হয়।

পৌর মেয়র এস এম নজরুল ইসলাম জানান, নিত্য প্রয়োজনীয় দোকান ছাড়া অন্যান্য দোকান বন্ধ রাখার জন্য মাইকিং করা হয়েছে। বুধবার থেকে নিত্যপণ্য ও ঔষধের দোকান ব্যতিত সকল দোকানপাট বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।

উপজেলা নির্বাহি কর্মকর্তা (ইউএনও) আরিফুজ্জামান জানান,উপজেলার পৌর ও ইউনিয়ন পর্যায়ের হাট বাজারসহ সকল ব্যবসা প্রতিষ্ঠান বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।করোনা ভাইরাসের সংক্রমনের ঝুঁকি এড়াতে হাটবাজার ও ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ২৫ মার্চ থেকে ৪ এপ্রিল পর্যন্ত বন্ধ ঘোষনা করা হয়েছে। শহরের পাশাপাশি গ্রামাঞ্চলে শুধুমাত্র নিত্য প্রয়োজনীয় ও ঔষুধের দোকান খোলা রাখতে বলা হয়েছে। নিত্য প্রয়োজনীয় দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রনে মনিটরিং টিম বাজারে সার্বক্ষনিক নজরদারি রাখছে।