কুমিল্লায় রেস্তোরা বেকারি ও মিষ্টি মালিক সমিতির মানববন্ধন

49
সৌরভ মাহমুদ হারুন।। নিরাপদ খাদ্য আইন সংশোধন ও ভোক্তা অধিকার নামে হয়রানি বন্ধের দাবিতে কুমিল্লা জেলা মিষ্টি প্রস্তুতকারক মালিক সমিতি মানববন্ধন ও বিক্ষোভ কর্মসূচি পালন করেছে। ১৩ ফেব্রুয়ারি বৃহস্পতিবার সকালে কুমিল্লা নগরীর কান্দিরপাড়  পূবালী চত্বরে এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়।  ভোক্তা অধিকার আইনে সর্বনিম্ন 3 লক্ষ টাকা জরিমানা আইন বাতিলের দাবি এবং তিনজন শ্রমিককে অনতিবিলম্বে কারাগার থেকে নিঃশর্ত মুক্তির দাবি জানান আন্দোলনকারীরা। কুমিল্লা জেলা ব্রেড বিস্কুট মালিক সমিতির সভাপতি ও কর্মসূচির বাস্তবায়ন কমিটির আহবায়ক তারেক কামাল ইমতিয়াজ বলেন, বর্তমানে ভোক্তা অধিকার আইনের নামে অনৈতিকভাবে বিভিন্ন হোটেল-রেস্তোরাঁয় ভ্রাম্যমান অভিযান করে যেভাবে আমাদের লোকদের উপর জরিমানা ও হয়রানি করা হচ্ছে  এতে করে একজন সাধারন হোটেল রেস্তোরাঁ মালিক কিছুতেই ব্যবসা পরিচালনা করা সম্ভব নয়। তাই এই আইন সংশোধন করে অনতিবিলম্বে আমাদের যৌক্তিক দাবী সমূহ মানার জন্য সরকারের নিকট আহ্বান করছি। অন্যথায় আমরা হোটেল-রেস্তোরাঁ বন্ধ সহ কঠোর কর্মসূচি হাতে নিতে বাধ্য  হবো। এ সময় আরো বক্তব্য রাখেন সংগঠনের যুগ্ম আহ্বায়ক এম এ মুকিত জিতু সাধারণ সম্পাদক আব্দুল হান্নান মোহন মালিক সমিতির সভাপতি মামুনুর রশিদ, সাধারণ সম্পাদক নাসির উদ্দিন, ব্রেড বিস্কুট, সাধারণ সম্পাদক মুজিবুর রহমান, উপদেষ্টা প্রদীপ সাহা, সিনিয়র সহ-সভাপতি মিজানুর রহমান, সহ-সভাপতি আবু তাহের, হোটেল মালিক সমিতির সদস্য শামীম দেওয়ান, রবিউল, ইকবাল হোসেন কাজী টিপু, মাহবুব, বেলাল আহমদ মিয়াজী সহ সর্বস্তরের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন। বক্তারা বলেন, আর যদি একটি হোটেলের ভোক্তা অধিকার মামলা দায়ের করে অথবা অনৈতিক ভাবে আমাদের হয়রানি জরে তাহলে আমরা অনির্দিষ্টকালের জন্য কুমিল্লা জেলার সমস্ত খাবার হোটেল রেস্তোরা এবং মিষ্টির দোকান সহ সকল কিছু বন্ধ করে দেব। বক্তাগণ কুমিল্লা সদর আসনের মাননীয় সংসদ সদস্য হাজী আ ক ম বাহাউদ্দিন বাহারের এ বিষয়ে সহযোগিতা কামনা করেন এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী জননেত্রী শেখ হাসিনা পর্যন্ত যেন তাদের এই মেসেজ পাঠানো হয় সেজন্য তারা কুমিল্লার সকল সাংবাদিকদের সহযোগিতা কামনা করেন।