কুবি শিক্ষককে ‘নির্দোষ’ দাবি করে শিক্ষার্থীদের মানববন্ধন

59

কুবি প্রতিনিধি: কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের ইংরেজি বিভাগের প্রধান আলী রেজওয়ান তালুকদারকে ‘ষড়যন্ত্রমূলকভাবে যৌন হয়রানির অভিযোগে ফাঁসানো’র প্রতিবাদে মানববন্ধন করেছে বিভাগটির শিক্ষার্থীরা। শিক্ষার্থীদের দাবি, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত হয়ে অভিযোগকারী ওই ছাত্রী ইংরেজি বিভাগের প্রধানের সামাজিক মান-মর্যাদা হেয় করতেই এই ঘৃণিত অভিযোগ করেছেন।

সোমবার (জানুয়ারি) দুপুরে বিশ্ববিদ্যালয়ের গোলচত্ত্বর এলাকায় এই মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়। এতে বিভাগটির প্রায় শতাধিক ছাত্র-ছাত্রী বিভিন্ন প্ল্যাকার্ড, ব্যানার হাতে নিয়ে অংশ নেয়।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা শিক্ষক আলী রেজওয়ান তালুকদারের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগকে ষড়যন্ত্রমূলক উল্লেখ করে বলেন, আমাদের দেশে একটাই সমস্যা কেউ যখন উপরে উঠতে চায়, তখনই তাকে নানা কৌশলে নিচে নামানো হয়। আলী রেজওয়ান তালুকদার বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন পরিচিত ও বিভাগের জনপ্রিয় শিক্ষক। তার বিরুদ্ধে এসব অভিযোগ একবারেই ভিত্তিহীন, উদ্দেশ্যপ্রণোদিত, আজগুবি।

মানববন্ধনে শিক্ষার্থীরা আরও বলেন, একশ্রেণির অসাধুচক্র উনার প্রতি হিংসাত্মক মনোভাবের কারণে এসব অপ্রচার চালাচ্ছে। স্যারকে বিভাগীয় প্রধানের দায়িত্ব থেকে সরাতেই ওই ছাত্রীকে ব্যবহার করে নিজেদের স্বার্থ চরিতার্থ করতে চাচ্ছে। তাছাড়া অভিযোগকারী ওই ছাত্রী এখন পর্যন্ত স্যারের বিরুদ্ধে সুনির্দিষ্ট কোনো প্রমাণও দেখাতে পারে নাই। আমরা এর সুষ্ঠু প্রতিকার চাই। প্রশাসনের কাছে অনুরোধ করবো যেন তারা বিষয়টি সুষ্ঠুভাবে তদন্ত করে বিচার করে।

উল্লেখ্য, গত ১৫ জানুয়ারি ইংরেজি বিভাগের অধীনে সন্ধ্যাকালীন স্নাতকোত্তর (ইএমএ) কোর্সের এক ছাত্রী তার প্রোগ্রাম ডিরেক্টর, বিশ্ববিদ্যালয় রেজিস্ট্রার এবং  বিশ্ববিদ্যালয়ের যৌন নিপীড়ন প্রতিরোধ সেলের নিকট তার বিভাগীয় প্রধান আলী রেজওয়ান তালুকদারের বিরুদ্ধে ‘যৌন হয়রানি’র অভিযোগ জমা দেন। বিষয়টি এখন যৌন নিপীড়ন প্রতিরোধ সেলের অধীনে তদন্তাধীন।