1. bpdemon@gmail.com : Daily Kaljoyi : Daily Kaljoyi
  2. ratulmizan085@gmail.com : Daily Kaljoyi : Daily Kaljoyi
মানবতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন দৈনিক কালজয়ী সিলেট প্রতিনিধি তরুন সাংবাদীক কে এম রায়হান
বাংলাদেশ । সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ ।। ১৫ই শাবান, ১৪৪৫ হিজরি
ব্রেকিং নিউজ
এক মিনিটে ৮টি ক্রিম বিস্কুট খেয়ে গিনেস ওয়ার্ল্ড রেকর্ড এ আবেদন । বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেলেন সাকিব আল হাসান অবরোধের প্রতিবাদে ইবি ছাত্রলীগের মোটরসাইকেল শোডাউন অনুষ্ঠানের মধ্যে দিয়ে ফুলবাড়ী প্রেসক্লাবের ৪২তম প্রতিষ্ঠাবার্ষিকী উদযাপন বিএনপি জামায়াতকে অগ্নি সন্ত্রাসের পথ ছেড়ে নির্বাচনে আসার আহবান-এমপি বাহার হত্যা মামলার রহস্য উন্মোচনে  সৈয়দপুর পুলিশের সাফল্য, গ্রেফতার ৩ কুলাউড়ায় আইনশৃঙ্খলা রক্ষায় পুলিশ সুপারের তদারকি জাপার সদস্য সচিবের বিরুদ্ধে শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নিয়োগ বাণিজ্যের অভিযোগ কুমিল্লায় হরতাল-অবরোধে ২২ পিকেটিং-ভাংচুর মামলা গ্রেফতার ১০৪ ইলিশ কম, পাঙ্গাস পাওয়ার আসায় মেঘনায় ছুটছে জেলেরা

মানবতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছেন দৈনিক কালজয়ী সিলেট প্রতিনিধি তরুন সাংবাদীক কে এম রায়হান

রায়হান আহম্মেদ :
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, ২৮ জুলাই, ২০২২
  • ৩০৪ বার পড়েছে

করোনা ভাইরাসের সংকট অনেক কিছুই শিখিয়েছে মানুষকে।গরীবের চাল, টাকা কিংবা ত্রাণ নিয়ে যেমন নয় ছয় করেছেন অনেকে,তেমনি হত দরিদ্র অসহায় ও অসুস্থের কারণে উপার্জন বন্ধ হওয়া পরিবারের মানুষকে খুঁজে বের করে তার পাশে দাঁড়িয়ে মানবতার হাত এগিয়ে দেওয়ার মত ঘটনাও ঘটছে এই সমাজেই।তফাৎ শুধু মানসিকতা আর চিন্তা চেতনার।এমনিভাবে দরিদ্র অসহায় ও শারিরিক ভাবে অচল মানুষদের খুঁজে বের করে সাহায্যের হাত বাড়িয়ে দিয়ে মানবতার উজ্জ্বল দৃষ্টান্ত স্থাপন করেছিলেন নবদূত সামাজীক ফোরামের ভাইস-চেয়ারম্যান,ওসমানীনগর উপজেলা সাংবাদীক ইউনিয়নের অর্থ সম্পাদক,দৈনিক কালজয়ী সিলেট প্রতিনিধি  কে এম রায়হান।

 

এবারের ভয়াবহ বন্যায়ও তিনি ঝাপিয়ে পড়েছেন মানুষের সেবায়। নিজের সাধ্যমত চেষ্টা করেছেন অসহায়দের পাশে থাকার।পরিচিত বন্দু বান্দব ও আত্মীয় স্বজনদের কাছ থেকে চেয়ে এনে ঘরে ঘরে পৌছে দিতেছেন খাবার সামগ্রী।তরুন এই সাংবাদীকের কাছে জানতে চাইলে তিনি বলেন,আমি একজন গরীবের সন্তান তাই গরীব অসহায় মানুষের কষ্ট দেখলে আমি ঘরে বসে থাকতে পারিনা নিজের সাধ্যমত চেষ্টা করি তাদের পাশে থাকার।

 

করোনা মহামারির সময় আমার এলাকার মানুষ যখন ঘর থেকে বের হতে ভয় পাচ্ছিল,তখন সর্ব প্রথম আমি আমার সামাজীক সংঘঠন থেকে তাদের ঘরে খাবার পৌছে দিয়েছিলাম।আমি কৃতজ্ঞ তাদের কাছে আমার এ কাজে যারা আমার পাশে থেকে আর্থিকভাবে সহযোগীতা করছেন।বিশেষ ভাবে আমি যাদের কাছে  কৃতজ্ঞ ,আমার মামা হাফিজ মাওঃ জুবায়ের বিন শায়েখ আব্দু রহিম,বড় ভাই মুফতি ওযায়ের আমিন সহ আর অনেকের কাছে।

 

এই ভয়াবহ বন্যায় আমাদের এলাকার অবস্থা খুবই খারাপ। সবার কাছে করজোড়ে অনুরোধ আপনাদের সাধ্যমত তাদের পাশে দাড়ান। বন্যা পরবর্তী সময়ে তাদের পুনর্বাসনে আমরা সবাই এগিয়ে আসবো এই প্রত্যাশা আমার ।

সংবাদটি শেয়ার করুন

আরো সংবাদ পড়ুন

Archive Calendar

শনি রবি সোম মঙ্গল বুধ বৃহ শুক্র
 
১০১১১২১৩১৪১৫১৬
১৭১৮১৯২০২১২২২৩
২৪২৫২৬২৭২৮২৯  
প্রকাশক কর্তৃক জেম প্রিন্টিং এন্ড পাবলিকেশন্স, ৩৭৪/৩ ঝাউতলা থেকে প্রকাশিত এবং মুদ্রিত।
প্রযুক্তি সহায়তায় Hi-Tech IT BD